কুতুবপুরে মাদ্রাসা বন্ধ থাকলেও শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে তোলা হচ্ছে ২০০ টাকা চাঁদা

 

নারায়ণগঞ্জ কথা : নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার কুতুবপুরে শাহী মহল্লা মোহাম্মদীয়া আলিম মাদ্রাসা করোনা কালিন শুরু থেকেই বন্ধ অবস্থায় আছে কিন্তু মাদ্রাসা বন্ধ থাকলেও শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে ২০০ টাকা চাঁদা তুলার অভিযোগ এসেছে। যা সম্পূর্ণ মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষের কমিটি এবং অত্র মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল হাফিজুর রহমানের দায়িত্বে এই চাঁদা তোলা হচ্ছে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে যার সম্পূর্ণ অনৈতিক এবং অপরাধ যোগ্য কাজ।

চাঁদার সত্যতা যাচাইয়ে অত্র মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল হাফেজ সাইদুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, মাদ্রাসার উন্নয়নমূলক কাজের জন্য চাঁদা তোলা হচ্ছে। পঞ্চম শ্রেণীর শিক্ষার্থী থেকে দশম শ্রেণী পর্যন্ত শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে চাঁদা আদায় করা হচ্ছে কতজন ছাত্র ছাত্রীর কাছ থেকে চাঁদা তোলা হয়েছে তার কোনো সঠিক তথ্য দেয়নি তিনি। এ সময় মাদ্রাসা কমিটির কাউকে পাওয়া যায়নি।

এ বিষয়ে ভুক্তভোগী নাম প্রকাশে অনাগ্রহী এক অভিভাবক জানান, মূল সনদ পত্রের জন্য নাকি এই ২০০ টাকা করে নেওয়া হচ্ছে তারা সরকারি কোন নির্দেশনা ছাড়াই মাদ্রাসা বন্ধ থাকা সত্বেও ২০০ টাকা করে চাঁদা নিচ্ছে যা সম্পূর্ণ বেআইনি। এই করোনা কালিন সময়েও চাঁদার টাকার জন্য চাপ প্রয়োগ করছে। তাই এ বিষয়ে ইউ এন ও স্যার এবং প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

 

নারায়ণগঞ্জ কথা এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

Shares