শনিবার, নভেম্বর ২৮, ২০২০

অসহায় নারী সুলতানা বেগমের ক্রয়কৃত জমি দখল কর‍ার চেষ্টা করছে : মাদক সম্রাট সোহেল ওরফে টনি সোহেল

 

নারায়ণগঞ্জ কথা ‍:এক সময়ের কুমিদিনী বাগানের বাসিন্দা মাদক সম্রাট সোহেল ওরফে টনি সোহেল, মৃতঃনরুল ইসলাম ও সুদ ব্যবসায়ী সুরুজ বানুর কুখ্যাত পুএ ইয়াবা ব্যবসায়ী সোহেল মাএ ১২ বছরে কোটি টাকার মালিক হয়ে গেছেন।টনি সোহেলের প্রথম ইয়াবা মামলা হয় ২০১৩ সনে মামলা নং-৪৪৯ এরপর থেকে প্রায় ৮/৯ বার ইয়াবা সহ জেলা, ডি.বি.ও সদর ,বন্দর থানায় বিপুল পরিমাণ ইয়াবা সহ গ্রেফতার হয় মাদক সম্রাট সোহেল ওরফে টনি সোহেল। সি.আই.ডি মাসুমের সাথে ফেন্সিডিল, ইয়াবা ব্যবসা করে মামলায় জেল খেটে বন্দর থানার বক্তারকান্দী এলাকায় বাড়ি করে ইয়াবা ব্যবসা করে আসছে কিছুদিন পূর্বে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা সহ বন্দর থানার এস,আই তালেব ইয়াবা সোহেল কে গ্রেফতার। এ ছাড়া দ্বিতীয় দফায় নিজ বাসা থেকে ২৫পিছ ইয়াবা সহ বন্দর থানা পুলিশ মাদক সম্রাট সোহেল কে গ্রেফতার করে জামিনে এসে সাপের মতো সোলম (চামড়া) পালটায় টনি সোহেল।নারায়ণগঞ্জ কোর্টে ৫ শ্রেনি গন্ডি না পেড়িয়েই আইনজীবী সহকারী কার্ড টাকার বিনিময়ে পান। এই মুহুরী কার্ডের বলেই চাল্লাচ্ছে নানা অপকর্ম।

এ ছাড়া অভিযোগের শেষ নেই মাদক সম্রাট সোহেলের নামে, মেট্রো হল নিবাসী মৃতঃআলাউদ্দিনের ছেলে আরিফ এর জমি ৬৭%কিনে নেয় নাম মাএ দামে। অসহায় আরিফ নিরুপায় হয়ে সোহেল কে আসামী করে জেলা পুলিশ সুপার বরাবর অভিযোগ করেন যার স্বারক নং-১৭১৭তাং-২৯/৮/১৯ইং এরপর বাড়ির মালিক আরিফ কে সন্রাসী কায়দায় তুলে নিয়ে রেজিস্টি করে টাকা না বুঝিয়ে দিয়ে পুলিশ সুপার বরাবর দ্বিতীয় দফায় সোহেল কে আসামী করে অভিযোগ দায়ের করেন -যার স্বারক নং ২৪২তাং -৪/২/২০২০ইং অভিযোগে উল্লেখ করে মাদক ব্যবসায়ী টনি সোহেল আরিফ কে ৮/১০ জন সন্রাসী নিয়ে সি,এন,জিতে তুলে নিয়ে ভয় দেখিয়ে  রেজিস্টি করিতে বাধ্য হয়।আরিফ আরও উল্লেখ করেন বিগত -১৩/০১/১৮ ইং তারিখে সুলতানা বেগম স্বামী -জুয়েল এর নিকট ৫৭%- জমি বাড়ি সহ ১০লক্ষ টাকায় নির্ধারণ করে নগদ ৫ লক্ষ টাকা বুঝে নিয়ে ও বিভিন্ন সময় র‍্যাপ স্টাম্পের মাধ্যমে সর্ব মোট -৮লক্ষ টাকা নেয়।

বায়নার মেয়াদ ৫বৎসর চুক্তি নামা করে বাড়ির মালিক আরিফ। সুলতানা বেগমের নিকট বায়নাকৃত দলিল নং-ক-প ২১৭১৪১৮ মোট মূল্য -১০ লক্ষ টাকা নগদ বায়না ৫লক্ষ টাকা। থানা নারায়ণগঞ্জ মোজা খানপুর ম খন্ড। জমির শ্রেনি স্হাপনা সহ বাড়ি মং ০০৫৭ (সাতান্ন) অযুতাংশ বায়নার মেয়াদ ৫বছর। দাতা -আরিফুর রহমান আরিফ পিতা -আলাউদ্দিন, মাতা -রমিজা বেগম গ্রহিতা – সুলতানা বেগম,পিতা-বদিউল আলম,মাতা-হালিমা বেগম ননজুডিশিয়ান স্টাম্পের মাধ্যমে নোটারি পাবলিকের আদালতের রেজি নং -১৩৫ তারিখ-১৫/০১/১৮ইং কোর্ট রেজিস্টি করেন।দাতা গ্রহিতা উপস্হিত হয়ে।

অথচ মাদক সম্রাট সন্রাসী বাহিনী দিয়ে সুলতানা বেগমের ক্রয়কৃত জমি দখল করতে চেষ্টা করছে এ ব্যপারে সুলতানা বেগম জিবনের নিরাপত্তা চেয়ে সন্রাসী সোহেল বাহিনীকে আসামী করে জেলা পুলিশ সুপার বরাবর,অভিযোগ দায়ের করেন যার স্বারক নং২২৩৯ তাং ২৯/১০/১৯ইং এছাড়া জমির মালিক সুলতানা বেগম নারায়নগনজ কোর্টে, ১০৭ /১১৪/১১৭ ধারায়,মামলা দায়ের করেন,যার নং ৩৯৬/১৯ইং বর্তমানে কোর্টে মামলা চলমান রয়েছে এর মাজেও মাদক সম্রাট টনি সোহেল পুলিশ দিয়ে অবৈধ টাকার গরমে হয়রানী করছে এছাড়া মাদক সম্রাট টনি সোহেলের সন্রাসী বাহিনী সিদ্বিরগন্জ থানাধীন হাউজিং এলাকার প্রবাসী মজিবুর রহমানের বাড়ী ভুয়া দলিল করে দখল করে রেখেছে,আগামী কাল দেখুন মুজিবুর রহমানের বাড়ীর আসল দলিলের কপি ও সোহেলের ভুয়া দলিলের কপি পাঠক চোখ রাখুন ।

 

নারায়ণগঞ্জ কথা এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

Shares
error: Alert: Content is protected !!