মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে দাবি ছিন্ন মূল মানুষদের জন্য আশ্রয় কেন্দ্র খোলা দরকার : মোঃ শহিদ বাদল

 

স্টাফ রিপোর্টার :  দেশের এই মহামারী করোনা ভাইরাসের দুর্যোগকালীন বিসয় নিয়ে, নারায়ণগঞ্জ জেলা আ.লীগের সাধারন সম্পাদক এ্যাড. আবু হাসনাত মোহাম্মদ শহিদ বাদল সাংবাদিককে বলেন,নারায়ণগঞ্জ এর বর্তমান পরিস্থিতিতে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার গণপ্রজাতন্ত্রী কর্মচারী সেনাবাহিনী বিভিন্ন সেক্টরের  জেলা প্রশাসক পুলিশ প্রশাসন  অক্লান্ত পরিশ্রম করছে। প্রজাতন্ত্রী কর্মচারী পুলিশ  সহ সকল সামাজিক নেতৃবৃন্দ মুক্তিযুদ্ধের মতো জাপিয়ে পরেছি আমরা চিরদিন মনে রাখবো। এ মরণঘাতী করুনা ভাইরাস থেকে মুক্ত থাকার জন্য বাসা থেকে বের না হওয়ার অনুরোধ  করি। বর্তমান এই পরিস্থিতির সময় মানুষ কোথাও কোথাও জীবাণুনাশক নকল ওষুধ দিয়েছেন। আমি চাই এই দুর্দিনে কোথাও যেন এমন ন্যাক্কার জনক ঘটনা না ঘটে ।

নারায়ণগঞ্জ সিটি করর্পোরেশন ও নারায়ণগঞ্জ জেলা উপজেলা গ্রাম গঞ্জে সকল জায়গায় সকল  চেয়ারম্যান মেম্বাররা মিলে সিটি কর্পোরেশন থেকে বারবার সকল জায়গায় জীবাণুনাশক ঔষধ  ছিটানো হয়। আমাকে একজন জিজ্ঞেস করলো আপনি কি কারফিউ চান,  লকডাউন চান, আমি বলেছি আমাদের দেশে গণপ্রজাতন্ত্রী সেনাবাহিনীরা পুলিশ প্রশাসন ডাক্তার নাস সাংবাদিক স্বেচ্ছাসেবকরা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে আমরা যারা  কাজ করে যাচ্ছি, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ২৪ ঘন্টা তদারক করছেন। তিনি ৭০ হাজার কোটি টাকা পরোয়ানা  ঘোষণা করেছেন, এতে মানুষ  স্বস্তি পেয়েছে ,নারায়ণগঞ্জের ভাই-বোনেরা আমি কারো ভাই, কারো সন্তান, কারো বন্ধু, কারো বাবার মত, আমার একটাই অনুরোধ  মৃত্যু পথযাত্রী যে রোগ এ পথ থেকে আমরা সবাইকে অনুরোধ জানাবো কেউ যাতে ঘর থেকে বের না হয় । আর কারফিউ দিবে না দিবে এটা গণপ্রজাতন্ত্রী কর্মচারীরা ভালো বুঝবে জনগণের নিরাপত্তার জন্য যা যা দরকার সব কিছু দেয়া হোক।

তিনি আরো বলেন,  আমার দাবি ছিন্ন মূল মানুষকে খাদ্য সামগ্রী দিতে গেলে দেখা যায় ছিন্ন মূল মানুষ  এক সাথে জড়ো হয়ে যায় । এ কারনে করুণা ভাইরাসে  আক্রান্ত হতে পারে,  তাই আমার দাবি ছিন্ন মূল মানুষদের জন্য একটি আশ্রয় কেন্দ্র খোলা দরকার, যেমন  ৯৮ বন্যায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যেভাবে মানুষের জন্য আশ্রয় কেন্দ্র খুলে দিয়ে ছিল। ঠিক সেই ভাবে স্কুল, কলেজ, এ সকল জায়গায়  ছিন্ন মূল লোকেদের এ সকল জায়গায় রাখলে দেশে কোয়ারেন্টর ব্যবস্থাপনা সুবিধা হবে, এমন কি তারা অনুদানের জন্য বাহিরে বাহিরে ঘোরাফেরা করবে না জারা জারা আশ্রয়হীন মানুষ শুধু তাদের জন্যই এই আশ্রয় কেন্দ্র খোলা হোক, এতে ঘরে একটা হিসাব থাকবে, আর আশ্রয় কেন্দ্র কে চিহ্নিত করা হোক, আমাদের সম্মানীয় জেলা প্রশাসন সুযোগ্য তিনি ঘরে ঘরে গিয়ে খাবার দিচ্ছেন, আমরা রাজনীতিবিদরা ও ঘরে ঘরে খাবার দিচ্ছি,আমি আবারো অনুরোধ করে বলছি , করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ থেকে জাতিকে রক্ষা করার জন্য সরকারিভাবে সারাদেশ লকডাউন করা হয়েছে। লকডাউন করার ফলে প্রয়োজন ছাড়া কেউ ঘরের বাহির হবেন না, আপনারা বারে বার সাবান দিয়ে হাত  দোবেন।

 

নারায়ণগঞ্জ কথা এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

Shares