বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২০

নেশা মুক্ত সুন্দর জীবন গঠনে মাঠের ভুমিকা অপরিসীম: পলাশ

 

ফতুল্লা প্রতিনিধি : বাংলাদেশ জাতীয় শ্রমিকলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির শ্রমিক উন্নয়ন ও কল্যান বিষয়ক সম্পাদক, আলীগঞ্জ ক্লাবের সভাপতি এবং আলীগঞ্জ মাঠ রক্ষা আন্দোলন কমিটির আহবায়ক আলহাজ্ব কাউসার আহমেদ পলাশ বলেছেন, একটি মাঠ একটি শিশুর মাঝে ভালবাসার সেতুবন্ধন রচনা করে। যে শিশুর মাঠ নেই তার কোন শৈশব নেই। যে ভালবাসার স্মৃতি বারবার অন্তরে দোলা দেয়, ভেসে ওঠে মানস পটে। কিন্তু আজকের শিশুরা চার দেয়ালে বন্দি।

মনোবিকাশে তারা সুযোগ পাচ্ছে না। আসক্ত হয়ে পড়ছে ফেসবুকে। ফেসবুক এ প্রজন্মকে মাথা নত করা জাতিতে পরিণত করছে।যুব সমাজ মাদকাসক্ত হয়ে নিজে ধ্বংস হওয়ার পাশাপাশি পরিবারকে অন্ধকারে ঠেলে দিচ্ছে। এসব কিছুই হচ্ছে মাঠের অভাবে।

২১ সেপ্টেম্বর শনিবার বিকেলে আলীগঞ্জ মাঠে অনুষ্ঠিত ২য় আলীগঞ্জ প্রিমিয়ার লীগ ডিগবার ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা শেষে পুরস্কার বিতরণী বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

কাউছার আহমেদ পলাশ বলেন, ফুটবলের যে গৌরবোজ্জল ইতিহাস তা ক্রমান্বয়ে ম্লান হয়ে যাচ্ছে। ফুটবলের গৌরবোজ্জ্বল ইতিহাস ফিরিয়ে আনতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সারাদেশের প্রত্যেকটি উপজেলায় একটি করে মিনি স্টেডিয়াম করার ঘোষনা দিয়েছেন।

তার সে ঘোষনাকে বাস্তবায়ন করার লক্ষ্যেই আমরা আলীগঞ্জ মাঠটিকে পুনরুদ্ধার করে নিয়মিত ভাবে বিভিন্ন টুর্নামেন্টের আয়োজন করে আসছি।মাঠের অভাবেই উচুঁমানের খেলোয়াড় তৈরী হচ্ছে না।

পলাশ বলেন, যুবকদের  আগামীর অপার সম্পদে পরিণত করতে হলে ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক কর্মকান্ডে সম্পৃক্ত করতে হবে এবং সেই পরিবেশও আমাদেরই তৈরী করে দিতে হবে। যারা যুব সমাজের মঙ্গল চায় না তারাই মাঠ নিয়ে ষড়যন্ত্র করে, মাদক ও সন্ত্রাসের পৃষ্টপোষকতা করে। ভবন নির্মানে বাঁধা দেওয়ায় সন্ত্রাসী জি কে শামীম আমাকে গুলি করে হত্যার হুমকি দিয়েছিল, আমি ভয় পাওয়ার লোক না। আমি বলেছিলাম আলীগঞ্জ মাঠ রক্ষায় যদি জীবন দিতে হয় দেবো, তবুও মাঠ দেবো না।

জীবনের শেষ রক্ত বিন্দু দিয়ে হলেও আলীগঞ্জ মাঠ রক্ষা করবো। সবচাইতে আনন্দের বিষয় হচ্ছে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন পাইওনিয়ার প্রিমিয়ার লীগের জন্য আলীগঞ্জ মাঠকে ভেন্যু হিসেবে বেছে নিয়েছে। তিনি আরো বলেন, নেশা মুক্ত সুন্দর জীবন গঠনে মাঠের ভুমিকা অপরিসীম। একটি মাঠ লাখো জীবনের অক্সিজেন। আমি বিশ্বাস করি আলীগঞ্জ মাঠ থেকেই একদিন জাতীয় ও আন্তর্জাতিক মানের খেলোয়াড় তৈরী হবে ।

আলীগঞ্জ মাঠ রক্ষা আন্দোলন কমিটির সচিব মোঃ শামসুল হকের সভাপতিত্বে ফাইনাল খেলায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, আলীগঞ্জ ক্লাবের সহ-সভাপতি মোঃ ফরিদ উদ্দিন, কুতুবপুর ইউনিয়ন পরিষদের ৭নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য মোঃ জাহাঙ্গীর আলম, ক্লাবের সহ-সভাপতি মেজবাহ উদ্দিন আহম্মেদ বাবুল, ব্যবসায়ী ও সমাজ সেবক আলহাজ্ব মোঃ আব্দুল হান্নান, মোঃ রমজান হোসেন, মোকাররম কন্ট্রাক্টর প্রমুখ। আরো উপস্থিত ছিলেন, টুর্নামেন্ট পরিচালনা কমিটির আহবায়ক হাজী মোঃ আরিফুল ইসলাম, সদস্য সচিব হাজী মোঃ রফিকুল ইসলাম শামীম, যুগ্ন সচিব মোঃ মিজানুর রহমান, সদস্য শাহাদাত হোসেন সেন্টু, ওয়াহিদ মুরাদ, কামরুল হাসান লিংকন, তুহিন, রাজিব, তোফাজ্জল, সালেহ আহম্মেদ, ওয়াসিম, মোঃ মামুন। ফাইনাল খেলায় নির্ধারিত সময়ে গোল শূণ্য শেষ হলে জাষ্ট ফ্রেন্ডস ক্লাব ট্রাইব্রেকারে আলীগঞ্জ তরুন যুব সংঘকে ২-০ গোলে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হয়। 

 

নারায়ণগঞ্জ কথা এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

Shares
error: Alert: Content is protected !!