১৫ জন ভাসমান ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করেছেন নারায়ণগঞ্জ সদর থানা পুলিশ

 

নারায়ণগঞ্জ কথা ডট কম : পবিত্র মাহে রামজান ও আসন্ন ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষে নারায়ণগঞ্জ সদর থানা পুলিশের বিশেষ অভিযানে ১৫ জন ভাসমান ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

বুধবার (১৫ মে) রাতে জেলা পুলিশ সুপারের নির্দেশে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) কামরুল ইসলামের নেতৃত্বে অভিনব পন্থায় রাতে চাষাড়া ও নারায়ণগঞ্জ হাসপাতালসহ নগরীর একাধিক স্থান থেকে তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন, গলাচিপা এলাকার ডিস সেলিমের ভাড়াটিয়া মৃত কাজী আবুল হোসেনের ছেলে মো. কাউছার (৩০), উকিলপাড়া এলাকার মোতাহারের বাড়ি ভাড়াটিয়া নিমন দেওয়ানের ছেলে মো. পাখি (৩৮), বাবুরাইলের মঞ্জুর মিয়ার ছেলে আল আমিন মিয়া (২৫), বেপারি পাড়ার কাদের মেম্বারের ম্যাচের ভাড়াটিয়া ও কুমিল্লা জেলার তিতাস দুর্গাপুরের আবুল কাশেমের ছেলে মো. শফিক (২৬), খানপুর হাসপাতাল রোডের রাজুর ছেলে রিমন (২২), দেওভোগ পানির ট্যাঙ্কি এলাকার মৃত সুলতানের ছেলে সোহেল (২২), নারায়ণগঞ্জ রেলস্টেশন এলাকার মৃত আজিজের ছেলে মিঠু (২৫), গলাচিপা বাবুল মিয়ার ভাড়াটিয়া দলাল মিয়ার ছেলে নজরুল ইসলাম (৪০), নারায়ণগঞ্জ বাসস্ট্যান্ডের অমুল্য রতন সাহার ছেলে দুলাল কৃষ্ণ সাহা (৪২), খানপুর রেললাইন সর্দারপাড়া এলাকার মুত সোলায়মানের ছেলে আসাদ (৪০), ৩০ নং এলএন রোডের মইন উদ্দিনের ভাড়াটিয়া মৃত সিরাজ উদ্দিনের ছেলে রিপন (৪০), ৫নং ঘাটের ভাসমান বাসিন্দা মৃত উজ্জ্বলের ছেলে বাবু (২০) ও সোহেল (২০)সহ আরও অনেকে। এ বিষয়ে সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ কামরুল ইসলাম বলেন, মাহে রমজান ও ঈদে সাধারণ মানুষ যাতে নির্বিঘ্নে চলাফেরা ও কেনাকাটা করতে পারে সে লক্ষ্যে বিশেষ এই অভিযান পরিচালিত হয়। ওই অভিযানে ছিনতাইকারী, প্রতারক চক্রের ১৫জন সদস্যদের আটক করা হয়। আটকৃতদের কাছ থেকে কস্টেপ মোড়ানো দুটি জর্দার কৌটা এবং কয়েকটি ইটের টুকরো উদ্ধার করা হয়েছে।

উক্ত অভিযানে অংশগ্রহণ করেন, নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানার পরিদর্শক(তদন্ত) মিজানুর রহমান, পরিদর্শক(অপারেশন) জয়নাল আবেদীন, এএসআই সামসুজ্জামান, এএসআই এমরান ভূইয়া, কনস্টেবল লাবনী আক্তার, এনামুল, আব্দুল হাই প্রমুখ।

 

নারায়ণগঞ্জ কথা এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

Shares