নারায়ণগঞ্জ ফতুল্লায় ভয়াবহ বিস্ফোরণ ১১দগ্ধ

 

নারায়ণগঞ্জ কথা : নারায়ণগঞ্জ ফতুল্লা তল্লায় জামাই বাজার এলাকায় ভয়াবহ বিস্ফোরণ দুঘটনা ঘটেছে। পুরুষ নারী শিশুসহ ১১ জন দগ্ধ।


শুক্রবার (২৩ এপ্রিল) সকালে জামাই বাজার এলাকায় স্থানীয় মফিজ ইসলামের বাড়ির ৪র্থ তলা বিল্ডিংয়ের ৩য় তলায় গ্যাসের চুলার পাইপ লাইনের লিকেজ থেকে এ বিস্ফোরণ ঘটে।পাশের ভাড়াটিয়া জানান, এতে ফ্ল্যাটের দুই কক্ষে থাকা পুরুষ, নারীশিশুসহ ১১জন দগ্ধ হন।এদের ঢাকা শেখ হাসিনা বার্ণ এন্ড প্লাস্টিক সার্জারী হাসপাতাল ভর্তি করা হয়েছে।

দগ্ধরা হলেন হাবিবুর রহমান, লিমন, সামিউল, সাথী, মীম, মাহিরা (৩মাস), আলেয়া, সোনাহার, শান্তি, মনোয়ারা ও আরেক জনের পরিচয় পাওয়া যায়নি। এদের মধ্যে মীম, মাহিরা, আলেয়া, সাথী ও লিমন কে মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়েছে।কর্তব্যরত চিকিৎসক জানান,১১ জনের মধ্য ১জনকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়া ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। ৪ জন আশঙ্কাজনক তাই আইসিইউতে আছে।৬জন অবস্হা সন্তোষজনক।
তাই নারায়ণগঞ্জ সদর জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।


এ বিষয় নারায়ণগঞ্জ ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্সের উপ পরিচালক আবদুল্লাহ আল আরেফিন সংবাদকর্মীদের জানান,আমরা সকাল ৬টায়২০ মিঃ খবর পায় তল্লায় আগুন লেগেছে।সাথে সাথে স্টেশন সিনিয়র সহ অফিসার মাজহারসহ আমরা ঘটনাস্হলে উপস্থিত হয়।ফায়ার সার্ভিসের তিনটি ইউনিটের সহায়তায় আধঘন্টা মধ্য আগুন নিয়ন্ত্রণ আনতে সক্ষম হয়। দগ্ধ আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায়।ওই বাড়ির তৃতীয় তলায় বেশ কয়েকজন পরিবার বসবাস করেন। রাতে একটি পরিবারের লোকজন চুলার বার্ণার বন্ধ না করে ঘুমিয়ে পড়েন।এতে চুলা থেকে গ্যাস বের হয়ে রান্নাঘর সহ অন্যান্য ঘরে ছড়িয়ে জমাট বেঁধে থাকে।

তিনি আরো বলেন, ভোরে রান্না ঘরে চুলার আগুন জ্বালালে এ বিস্ফোরণ হতে পারে বলে প্রাথমিক ভাবে ধারনা করছি।ঘটনাস্থল নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক মুস্তাইন বিল্লাহ, ইউএনওসহ পুলিশের উধ্বর্তন কর্মকর্তা পরিদর্শন করেন।

পরিদর্শন শেষে উপস্থিত সংবাদকর্মীদের ডিসি জানান,সকালে এ ঘটনা ঘটেছে।কেউ নিহত হয়নি।১১জন দগ্ধ হয়েছে তাদের মধ্যে ৫ জনকে ঢাকা বার্ণ হাসপাতাল পাঠানো হয়েছে। ঘরের আসবাদপএ পুড়ে গেছে।দুটি ঘরের দেয়াল ভেঙ্গে পাশের বাড়ির ছাদের উপর পরে আছে।এ ঘটনা তদন্তে ৫ সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হবে।

 

নারায়ণগঞ্জ কথা এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

Shares