Home ঢাকা নারায়ণগঞ্জ চেম্বার অফ কমার্সের আয়োজিত মানববন্ধন বিক্ষোভ সমাবেশে যুবলীগ নেতা খান মাসুদের যোগদান

চেম্বার অফ কমার্সের আয়োজিত মানববন্ধন বিক্ষোভ সমাবেশে যুবলীগ নেতা খান মাসুদের যোগদান

চেম্বার অফ কমার্সের আয়োজিত মানববন্ধন বিক্ষোভ সমাবেশে যুবলীগ নেতা খান মাসুদের যোগদান

নারায়ণগঞ্জ কথা : কুষ্টিয়ায় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য ভাঙার প্রতিবাদে চেম্বার অব কমার্সের আয়োজিত মানববন্ধনে ৪৪ টি ব্যবসায় সংগঠন অবস্থান করে উক্ত মানববন্ধনে একাত্মতা প্রকাশ করে উপস্থিত ছিলেন যুবলীগ নেতা খান মাসুদ।

শনিবার (১২ ডিসেম্বর) সকাল ১১. ৩০ মিনিটে নারায়ণগঞ্জ চেম্বার অব কমার্সের আয়োজনে নারায়ণগঞ্জ প্রেসক্লাবের সামনে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি খালেদ হায়দার খান কাজলের সভাপতিত্বে এ সময় বিশেষ অতিথি নারায়ণগঞ্জ জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার মোহাম্মদ আলী ।

নারায়ণগঞ্জ ৪ আসনের সাবেক সাংসদ ও জেলা মুক্তিযুদ্ধা কমান্ডার মোহাম্মদ আলী বলেন, আমরা ১৯৭১ সালে বঙ্গবন্ধুর নির্দেশে মুক্তিযুদ্ধ করেছিলাম,বঙ্গবন্ধু দেশের জন্য যা করেছেন আমরা সত্যিকার অর্থে কোনোটাই অস্বীকার করতে পারবো না।

তিনি আরও বলেন যারা ব্যবসা করছে সবাই এ প্রজন্মের লোক,বঙ্গবন্ধুর চেতনায় যারা ব্যবসা করছিলো আজকে দেশে তারা সবাই প্রতিষ্ঠিত। আমি জেলা কমান্ডার হিসেবে ব্যবসায়ীদের কাছে অনুরোধ করবো যিনি আমাদের এ দেশের জন্ম দিয়েছেন তাকে ভুলে যাবেন না বঙ্গবন্ধু কে। যারা বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যে হাত দিয়েছে তাদের জবাব দিতে আমরা মুক্তিযুদ্ধারাই যথেষ্ট। আমরা সকলে মিলে এদের প্রতিহত করবো।

মোঃ আলী আরও বলেন সাড়াদেশে যেমন প্রতিকৃতি আছে সেভাবেই আমাদের দেশের প্রতিটি জেলায় বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি থাকতে হবে। আমি এ জন্য ব্যাবসায়ীদের সহোযগিতা কামনা করছি।

সভাপতির বক্তব্যে খালেদ হায়দার খাঁন কাজল বলেন যতদিন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা থাকবে ততদিন দেশের উন্নয়নের ধারা অব্যাহত থাকবে। যার প্রমান দিলেন দুই দিন আগেই পদ্নাসেতুর পূর্নতায়।

তিনি আরও বলেন জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমানের নেতৃত্বে আমাদের বিজয় মাস পেয়েছি আর একি মাসে পদ্না সেতুর মাধ্যমে আমাদের আরেকটি বিজয় এনে দিলেন তার সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনা।

কাজল আরও বলেন আমরা বঙ্গবন্ধুর প্রশ্নে কোনো আপোষ করবো না, এখানে কোনো দ্বীধা বা প্রশ্ন থাকতে পারে না। ব্ঙ্গবন্ধুর সোনারবাংলায় কোনো মৌলবাদীর ঠাই হবে না। দেশের উন্নয়নের ধারা কে বাধাগ্রস্ত করতে মৌলবাদীরা এঘটনা ঘটিয়েছে। বাংলাদেশের উন্নয়নের ধারা কে অব্যাহত রাখতে জননেত্রী শেখ হাসিনার হাত কে শক্তিশালী করে ঐ কুচক্রীদের প্রতিরোধ করতে আমরা মাঠে নেমেছি। আমরা শুধু আমাদের উপস্হিতি জানান দিলাম, আগামীতে প্রয়োজন হলে যে কোনো আন্দোলন গড়ে তুলবো।

উক্ত মানববন্ধনে আরো উপস্থিত ছিলেন এফবিসিসিআইয়ের সাবেক সহসভাপতি বীর মুক্তিযােদ্ধা মােহাম্মদ আলী সাবেক নারী সংরক্ষিত নারী সাংসদ সদস্য এড. হােসনে আরা বাবলী, বিকেএমই এর সহসভাপতি মঞ্জুরুল আলম ,বাংলাদেশ হােসিয়ারি এসােসিয়েশনের সভাপতি ও নাসিক কাউন্সিলর নাজমুল আলম সজল, বিকেএমই এর সাবেক সহ সভাপতি জিএমফারুক নারায়ণগঞ্জ কর্মাস এন্ড ইন্ডাস্ট্রির পরিচালক কবির হােসেন ভূঁইয়া সাজনু, এহসানুল হাসান নিপু, ১৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল করিম বাবু, নারায়ণগঞ্জ আটা ময়দা মিলস সমিতির সভাপতি মতিউর রহমান মতি, নারায়ণগঞ্জ পাট আড়ৎ দার সমিতির সভাপতি ফয়েজ উদ্দিন আহমেদ লাভলু বাংলাদেশ ইয়ার্স মার্চেন্টস এসােসিয়েশনের সাবেক সভাপতি এম সােলাইমান, জেলা ট্রাক মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ও নাসিক কাউন্সিল শফি উদ্দিন প্রধান, জেলা হােটেল রেস্তোরা মালিখ সমিতির সাধারণ সম্পাদক সেলিম আহমেদ হেনা, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক শিখন সরকার শিপন মহানগরের সভাপতি অরুণ কুমার দাস, নারায়ণগঞ্জ জেলা ক্যাবল অপারেটর এসােসিয়েশনের সভাপতি মাে আহমেদ, যুবলীগ নেতা খান মাসুদ, ফতুল্লা থানা ছাত্রলীগের সভাপতি আবু শরিফুল হক প্রমুখ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Shares
error: Alert: Content is protected !!